রাত ২:০০,সোমবার, ২০শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং , ৭ই মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
«» স্কুলছাত্রীকে যৌন হয়রানি: ছাত্রলীগ সভাপতিসহ আটক ৭ «» খেজুরের রস চুরি করায় পিটিয়ে হত্যা! «» হোসেনপুরে বিএডিসির আলুবীজে কৃষকের মাথায় হাত, অর্ধেক চারাও গজায়নি: ক্ষতিপুরন দাবি «» গফরগাঁওয়ে কান্দিপাড়া আবদুর রহমান ডিগ্রী কলেজের আইসিটি কাম একাডেমিক ভবন উদ্বোধন «» গফরগাঁওয়ে অটোরিকশা চাপায় ৭ বছরের শিশুর মৃত্যু «» গফরগাঁওয়ে ৩টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে একাডেমিক ভবন ও ২টি রাস্তা পাকাকরণ কাজের উদ্বোধন «» মুজিববর্ষ উপলক্ষে গফরগাঁওয়ে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা «» কাল রোববার থেকে তিনদিনের শৈত্যপ্রবাহ শুরু «» গফরগাঁওয়ে উপজেলা প্রশাসন আয়োজনে মুজিববর্ষের ক্ষণগণনা উদ্বোধন «» সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম স্মৃতি সংসদের আয়োজনে হোসেনপুরে স্মরণ সভা

গফরগাঁওয়ে একের পর এক দিনেদুপুরে দুঃসাহসিক চুরি, আতংকে শহরবাসী

তোফায়েল আহমেদ ও সারোয়ার ফরাজি, নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

ময়মনসিংহের গফরগাঁও পৌর শহরে সাম্প্রতিক সময়ে দিনের বেলা ব্যাপক হারে বেড়েছে চোরের উপদ্রব। কর্মজীবি পরিবারের সদস্যরা দিনের বেলায় বাসায় খাকেন না। সেই সুযোগ কাজে লাগিয়ে গফরগাঁও পৌর শহরে বেপরোয়া হয়ে উঠছে ‘চোর সিন্ডিকেট’ ও ঘটছে দুঃসাহসিক চুরির ঘটনা। একের পর এক চুরির ঘটনায় শহরবাসীর মাঝে উদ্বেগ ও আতংক বিরাজ করছে। সাম্প্রতিক সময়ে দিনে দুপুরে পৌর শহরের কমপক্ষে ১১টি বাসায় দুঃসাহসিক চুরির ঘটনায় প্রায় ৭০ ভরি স্বর্নালংকার, নগদ টাকা ও মূল্যবান জিনিসপত্র চুরি হয়েছে।
পৌর শহরের বাঁশতলা মার্কেট এলাকার বাসিন্দা অগ্রনী ব্যাংক গফরগাঁও শাখার কর্মচারী বাবুল হোসেন গত রবিার সকালে কর্মস্থলে যায়, বাবুল হোসেনের স্ত্রী তাদের চতুর্থ শ্রেনীতে পড়–য়া মেয়েকে স্কুলে গিয়ে টিফিন খাওয়াতে সকাল ১০ টার দিকে বাসা থেকে বের হয়। সকাল সাড়ে এগারটায় বাসায় এসে দেখে তাদের সর্বনাশ হয়ে গেছে। বাসার প্রধান ফটকের তালা ভাঙা । বাসায় প্রবেশ করে দেখেন বাসায সমস্ত কিছু তছনছ করা, ওয়ারড্রব ও ষ্টীলের আলমিরার তালা ভাঙা। চোরের দল বাবুল হোসেন দম্পত্তির তিন ভরি স্বর্ণালংকার, নগদ টাকাসহ প্রায় তিন লাখ টাকার মালামাল চুরি করে নিয়ে যায়। একই দিনে স্কুল শিক্ষিকা নাদিয়া জাহান তানিয়ার ৫ নং ওয়ার্ড রেলপাড় সড়কের বাসায় বাসার সদর দরজার তালা ভেঙে দুই স্বর্নালংকার ও নগদ ৪০ হাজার টাকা চুরি করে নিয়ে যায় চোরের দল।
সাম্প্রতিক সময়ে দিনে দুপুরে বাসার প্রধান ফটক,ওয়ারড্রব ও ষ্টীলের আলমিরার তালা ভেঙে পৌর শহরের পশু হাসপাতাল সড়কের রুপান্তর হল এলাকায় ব্যবসায়ী আরিফুল ইসলাম সজলের বাসা থেকে ৮ ভরি স্বর্নালংকার ও নগদ ৭০ হাজার টাকা, পশু হাসপাতাল সড়কের নিউ মডেল স্কুলের গলিতে কর্মজীবি পরিবার সাংবাদিক আপেল মাহমুদ ও সাবিনা ইয়াসমিন দম্পতির বাসা থেকে ১০ ভরি স্বর্নালংকার ও নগদ ২০ হাজার টাকা, মীর মাহফুজুল আলম ছানা এবং ইছমত আরা শীলা দম্পত্তির বাসা থেকে নগদ আড়াই লাখ টাকা ও আধা ভরি স্বর্নালংকার, পৌর শহরের ঘনবসতিপূর্ন ও ব্যস্ততম এলাকা পন্ডিত পাড়ায় সালটিয়া ইউপি চেয়ারম্যান নাজমুল হক ঢালীর বাসা থেকে ১০ ভরি স্বর্নালংার ও নগদ ২০ হাজার টাকা, সোরহাব মার্কেট এলাকায় ব্যবসায়ী মোকাব্বের বাসা থেকে ৪ ভরি স্বর্নালংকার ও নগদ দুই লাখ টাকা, আলতাফ গোলন্দাজ ডিগ্রী কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ বিজন কুমার বর্ধনের বধ্যভূমি সড়কের বাসা থেকে সাড়ে ৯ ভরি স্বর্নালংকার ও নগদ ৩০ হাজার টাকা, শিবগঞ্জ রোড ১ নং গলিতে সরকারি প্রাথমিক শিক্ষক তাহছিনা আক্তারের বাসা থেকে ১০ ভরি স্বর্নালংকার ও নগদ ৮০ হাজার টাকা, সরকারি প্রাথমিক শিক্ষক হোসনে আরা বেগমের বাসা থেকে ৩ ভরি স্বর্নালংকার ও নগদ ৫০ হাজার, শিলাসী ৯ নং ওয়ার্ডে সাংবাদিক শফিউল আলম মারুফের বাসা থেকে ৫০ হাজার টাকার মালামাল এবং পৌর শহরের শেষ সীমানায় ষোলহাসিয়া এলাকায় সাবেক ব্যাংক কর্মকর্তা ও আওয়ামীলীগ নেতা মুকবুল হোসেনের বাসা থেকে ২০ ভরি স্বর্নালংকার ও নগদ ৬০ হাজার টাকা চুরি করে নিয়ে যায়।
জানা গেছে দিনের বেলা তালাবদ্ধ ঘরেই চুরির ঘটনা ঘটছে। ভুক্তভোগীরা জানান, অহরহ চুরির ঘটনায় থানা পুলিশ নিজেদের দায় এড়াতে অধিকাংশ ক্ষেত্রে নিরপরাধ ব্যক্তিকে আটক করে এবং কোন কোন ক্ষেত্রে ভিন্ন অভিযোগে ধরে আনা মানুষকে চুরির মামলায় আদালতে চালান করছে। এতে আসল চোররা পার পেয়ে যাচ্ছে। প্রকৃত চোরদের ব্যাপারে ব্যাপারে পুলিশ অন্ধকারে হাবুডুবু খাওয়ায় চুরির ঘটনা বেড়েই চলেছে।
ভুক্তভোগী মোকাব্বের হোসেন বলেন, তার বাসায় চুরির ঘটনায় মামলা হলেও থানা পুলিশ কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি। চুরি যাওয়া মালামালও উদ্ধার করতে পারে নি।
গফরগাঁও থানার ওসি (তদন্ত) মনিরুল ইসলাম বলেন, এ সব ঘটনায় অনেকগুলো মামলা হয়েছে। কোন আসামী ধরা পড়েনি। অনেক ক্ষেত্রে আবার যার বাসায় চুরি সে মামলা করতে উৎসাহী হয় না। অন্যদিকে থানা পুলিশ সন্দেহভাজন কাউকে গ্রেফতার করলেও , চুরির মামলার কারনে আদালত থেকে রিমান্ড মঞ্জুর করে না। যে কারনে চোর সনাক্ত করা যায় না।

দৈনিক বাংলা পত্রিকা / আতাউর রহমান মিন্টু

 
Express Your Reaction
Like
Love
Haha
Wow
Sad
Angry
শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।